১১ জানুয়ারী, ২০১৫

নিশিকুটুম্ব

লিখেছেন শহীদুজ্জামান সরকার

কাল রাতে যখন আমি ইভেন্টের বিজ্ঞাপন দিয়ে ঘুমিয়ে পড়বো ভাবছি, ঠিক তখনই দরজার কড়া কেউ একজন নাড়তেছে।

খুব অবাক হলাম, কে এত রাতে আমায় ডাকে!

দরজা খুলে দেখলাম এক কৃশকায় যুবক, যে লম্বা নয় খাটোও নয়। কী এক অপূর্ব চেহারার মানুষ দরজায় দাড়িয়ে আছে।

- কে আপনি? কী চান?

- আমি হযরত মুহাম্মদ।

- বাড়ি কোথায়?

- এই শালা খানকির পোলা, আমাকে চিনিস না! আমাকে নিয়ে ফেসবুক, ব্লগে আজেবাজে কথা লিখিস, আর এখন চিনতে পারতেছিস না।

- ও তাই? আপনিই তাহলে কালের সেই লুচ্চা পুরুষ, যার কারণে হাজার হাজার মানুষ খুন হচ্ছে।

এঁকেছেন Amileye Sigonshak

- হুম! আচ্ছা, তোমরা নাকি নবীপুন্দন সপ্তাহ, মানে আমাকে পোন্দানোর জন্য ইভেন্ট আয়োজন করেছ? এই কাজটা কিন্তু তোমরা ঠিক করতেছ না। আমি পাছার ব্যথায় আর থাকতে পারতেছি না। আমাকে ছেড়ে দাও তোমরা।

- ছাড়তে পারি, তবে একটা কাজ করলে।

- কী সেই কাজ।

- কাল সকাল থেকে আমার বাড়িতে থাকবেন। বাথরুম পরিষ্কার করবেন। থালাবাটি পরিষ্কার করবেন। ঠিক আছে? আপাতত গিয়ে ওই ব্যালক্যানিতে শুয়ে থাকুন, আমার বড্ড ঘুম পাচ্ছে।

হায়রে হায়! সকালে একটু দেরি করে উঠেছি, উঠে দেখি সেই মুহাম্মদ আর নাই। আমার থালাবাটি চুরি করে নিয়ে গেছে। তাই তো আমি নবী পুন্দানোটা অব্যাহত রাখছি।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন